গল্পরাজ্য

 

গল্পরাজ্য

গল্প শোনার ভুবন - ‘গল্প রাজ্য’

অতি প্রাচীনকাল থেকেই ঠাকুরমা, দিদা, দাদা, নানা-নানি, মা, বাবার মুখে গল্প শুনে বাঙালির বেড়ে ওঠা।

ফুলকির আয়োজনে গল্পের আসরে নানা স্বাদের দেশী-বিদেশী গল্প শোনে শিশুরা। আর যারা গল্প শোনান তারা হয়ে ওঠেন সেই গল্পগুলোরই এক একটি চরিত্র।

 

কেন গল্প রাজ্য?

রবীন্দ্রনাথ লিখেছেন, “শিশুটির যেমনি কথা ফুটল অমনি সে বলল, ‘গল্প বলো।’

কেবল জীবনের শুরুতে নয় রবীন্দ্রনাথ বলেন, ‘শুধু শিশু বয়সে নয়, সকল বয়সেই মানুষ গল্পযোগ্য জীব।’

বিদেশে story Tellers’ Association আছে। তাদের কাজই হলো মানুষকে গল্প শোনানো।

আমরাও তাই বলি, বাড়ির শিশুদের নিয়ে গল্প শোনার আসরে যুক্ত হোক সবাই।

বিগত সময়ে দেখা গেছে এই আসর শিশুদের জন্য হয়ে উঠেছে পরম কাঙ্ক্ষিত। আর গল্পকথক দিদি-দাদাভাইরা একান্ত আপনজন।

 

বয়স সীমাঃ ৪+ থেকে ১৪

গল্প শোনার দিনঃ সপ্তাহে ১ দিন, বুধবার বিকেল ৪.৩০-৫.৩০